SciTech

মহাকাশে আলোর রোশনাই, মুগ্ধ পৃথিবী

মহাকাশে যে সারাক্ষণ কত কিছুই ঘটে চলেছে তার কতটুকুই বা জানা যায়! একটি দৃশ্য অবশ্য মুগ্ধ করল পৃথিবীকে। মহাকাশ আলোকিত হল চোখ ধাঁধানো আলোর রোশনাইতে।

অনন্ত বিশ্ব মাঝে যে কত কিছুই ঘটে চলেছে তার খবর পৃথিবী কি রাখতে পারে? পারেনা। তবে সামান্য যে খবর এখন নানা শক্তিশালী টেলিস্কোপের হাত ধরে আসছে তাতেই চোখ ধাঁধিয়ে যাচ্ছে বিজ্ঞানীদের, বিশ্ববাসীর।

ইউরোপিয়ান সাদার্ন অবজারভেটরি তেমনই এক ছবি প্রকাশ করে রীতিমত বিশ্ববাসীকে অভিভূত করে দিয়েছে। ধ্বংস যে এত সুন্দর হতে পারে তা বোধহয় কারও কল্পনা ছিলনা।

যেখানকার ছবি ধরা পড়েছে তা পৃথিবী কেন সৌরমণ্ডলের ধরাছোঁয়ারও অনেক অনেক দূরে। হিসাব বলছে পৃথিবী থেকে ৮০০ আলোকবর্ষ দূরে ঘটা ঘটনার ছবি পেয়েছে ইউরোপিয়ান সাদার্ন অবজারভেটরি। যেখানে একটি তারার ধ্বংসের মুহুর্তের ছবি ধরা পড়েছে।

সূর্যের মতই এক তারা তার জীবন শেষ করল সেখানে। নক্ষত্র ধ্বংসের সময়ের সেই সুপারনোভা এবার চাক্ষুষ করল পৃথিবী।

এক অতি প্রবল বিস্ফোরণ ঘটে শেষ হয়ে যায় ওই তারা। আর ধ্বংসের ঠিক মুহুর্তে বিস্ফোরণের পরপরই চারধার জুড়ে গ্যাসের এক মেঘ তৈরি হয়। যেখানে খেলা করতে থাকে কমলা আর গোলাপি আলো।

যে তারার মৃত্যু হল সেটি সূর্যের চেয়ে ৮ গুণ বড় ছিল। আর তা ধ্বংসের পর ছড়িয়ে পড়া গ্যাসের যে আলোকছটা নজর কেড়েছে তা সৌরমণ্ডলের চেয়েও ৬০০ গুণ বেশি জায়গা জুড়ে ঘটেছে।

যে ছবি দেখে বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন ঘটনাটি ঘটেছে আজ থেকে প্রায় ১১ হাজার বছর আগে। তার ছবি এখন দেখা যাচ্ছে। আর বিজ্ঞানীরা এই ছবিতে ওই তারার মধ্যে থাকা সব উপাদানও দেখতে পাচ্ছেন। যার অধিকাংশই হাইড্রোজেন অণু বলে জানিয়েছেন তাঁরা।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button