Business

রিজার্ভ ব্যাঙ্কের সিদ্ধান্তে মধ্যবিত্তের কপালে চিন্তার ভাঁজ

মধ্যবিত্তের জীবন থেকে ক্রমশ মুছে যাচ্ছে শান্তি। জিনিসপত্রের দাম তো আকাশছোঁয়াই। এবার বাড়তে পারে সুদের হারও। রিজার্ভ ব্যাঙ্কের সিদ্ধান্ত সেই ইঙ্গিতই বহন করছে।

মধ্যবিত্ত মানুষজন জীবনের বাঁধা রোজগারের থেকে কিছুটা করে বাঁচিয়ে একটি মাথা গোঁজার ফ্ল্যাট কেনেন। কেউ কেনেন ছোট একটা গাড়ি। শখ বলতে এই টুকুই। সে গাড়ি হোক বা বাড়ি, সাধারণত ব্যাঙ্ক থেকে ঋণ নিয়েই সেগুলি কেনেন তাঁরা।

তারপর ব্যাঙ্ককে সুদ সহ আসল কিস্তি কিস্তিতে মেটাতে থাকেন। কিন্তু শুক্রবার রিজার্ভ ব্যাঙ্ক যে সিদ্ধান্ত নিল তাতে সেই সুদের হারই বাড়ার অপেক্ষায় বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞেরা।

শুক্রবার ফের একদফায় রেপো রেট ৫০ বেসিস পয়েন্ট বাড়াল কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্ক। গত জুন মাসেই রেপো রেট ৫০ বেসিস পয়েন্ট বাড়িয়েছিল রিজার্ভ ব্যাঙ্ক। এবার ফের একবার রেপো রেট ৫০ বেসিস পয়েন্ট বাড়াল তারা। ফলে এখন রেপো রেট দাঁড়াল ৫.৪০ শতাংশ।

এদিন রেপো রেট বাড়ার কথা ঘোষণা করেন রিজার্ভ ব্যাঙ্কের গভর্নর শক্তিকান্ত দাস। তিনি জানান, দেশে মূল্যবৃদ্ধিতে লাগাম দিতে রেপো রেট বাড়াতেই হত। এটা সময়োপযোগী সিদ্ধান্ত বলেই জানান তিনি।

এদিন ৫০ বেসিস পয়েন্ট রেপো রেট বাড়ার আগে জুনে ৫০ বেসিস পয়েন্ট এবং তার আগে ৪০ বেসিস পয়েন্ট রেপো রেট বাড়ায় কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্ক। এদিন নিয়ে টানা ৩ বার রেপো রেট বাড়াল তারা।

মুদ্রাস্ফীতিতে লাগাম দিতে রেপো রেট বাড়ানো হলেও তা মধ্যবিত্তের সুদের বোঝাও বাড়ানোর রাস্তা খুলে দিচ্ছে। যা তাদের বাজেটে বাঁধা জীবনে অনেক সময়ই বাড়তি চাপ তৈরি করছে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.