Entertainment

বৈধ বিয়ে হয়নি, নিখিলের সঙ্গে লিভইন করতেন, বিস্ফোরক নুসরত

নিখিল জৈনের সঙ্গে তাঁর বিয়েই হয়নি। তাঁরা আদপে এতদিন লিভইন করতেন। এদিন কার্যত বোমা ফাটালেন বসিরহাটের সাংসদ তথা অভিনেত্রী নুসরত জাহান।

নিখিল জৈনের সঙ্গে ২০১৯ সালে তাঁর বিয়ে হয় বলেই এতদিন জানতেন সকলে। তুরস্কে বিয়ে করার পর কলকাতায় বড় অনুষ্ঠানও করেন ২ জনে। সেখানে বহু অতিথি নিমন্ত্রিত ছিলেন।

তারপর দুর্গাপুজো সহ বিভিন্ন অনুষ্ঠানে ২ জনকে একত্রে দেখা গেছে। স্বামী-স্ত্রী হিসাবেই ছিলেন তাঁরা। ইদানিং অবশ্য তাঁদের ২ জনের সম্পর্কে চিড় ধরেছে বলে শোনা যাচ্ছিল।

নুসরত আলাদাও থাকছিলেন। এমনকি অভিনেতা যশের সঙ্গে নুসরতের সম্পর্ক তৈরি হয়েছে বলেও শোনা যাচ্ছিল। ২ জনকে একসঙ্গে দেখাও যাচ্ছিল।

এদিকে নুসরতের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ার খবরও ছড়ায় সম্প্রতি। এই পরিস্থিতিতে বুধবার কার্যত বোমা ফাটালেন নুসরত জাহান।

নুসরত দাবি করেছেন তাঁদের বিয়ে বৈধই নয়। কারণ তাঁদের বিয়ে হয়েছিল তুরস্কের বিবাহ আইনে। কিন্তু তাঁরা ২ জন ২ ধর্মের। তাই ভারতে তাঁদের বিয়ে স্পেশাল ম্যারেজ অ্যাক্ট-এ হতে হবে। কিন্তু তা হয়নি। ফলে তাঁর বিয়েই হয়নি।

নিখিল জৈনের সঙ্গে তিনি কার্যত এতদিন লিভইনে ছিলেন। আর বিয়ে যখন হয়নি তখন বিবাহ বিচ্ছেদেরও প্রশ্ন উঠছে না। নুসরতের এদিনের বক্তব্যের পর নুসরত-নিখিলের কী বিবাহবিচ্ছেদ হতে চলেছে, এমন প্রশ্নের আর কোনও অবকাশ রইল না বলেই মনে করা হচ্ছে।

নুসরত জাহান ও নিখিল জৈনের বিয়ে কিন্তু ২০১৯ সালে যথেষ্ট চর্চিত হয়েছে। তাঁদের বিয়ের আগের অনুষ্ঠান, সঙ্গীত, গায়েহলুদ, বিয়ে, ঝলমলে রিসেপশন, সব কিছুর ছবিই সামনে এসেছিল সে সময়।

সিঁদুর পরে দুর্গাপুজোয় সিঁদুর খেলতেও দেখা যায় নুসরতকে। তাঁর এদিনের বক্তব্যের পর ওই ঘটনা পরম্পরা ও ছবি নিয়ে প্রশ্ন উঠছে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More
Back to top button