National

হাসপাতাল জানিয়েছিল মৃত, সৎকারের আগে জানা গেল জীবিত আছে শিশু

দিল্লির শালিমার বাগের ম্যাক্স হাসপাতাল। নামীদামী হাসপাতালের তালিকায় জায়গা করে নেওয়া এই হাসপাতালের বিরুদ্ধে সামনে এল এক ভয়ংকর গাফিলতির অভিযোগ। অভিযোগ এতটাই গুরুতর যে দিল্লির স্বাস্থ্যমন্ত্রী তড়িঘড়ি এ বিষয়ে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন। সূত্রের খবর, নাঙ্গলোই এলাকার বাসিন্দা এক প্রসূতি ওই হাসপাতালে যমজ শিশুর জন্ম দেন। অভিযোগ, হাসপাতাল পরিবারকে জানায় দুটি শিশুই অকালে ভূমিষ্ঠ হয়েছে। ফলে তাদের বাঁচানো সম্ভব হয়নি। মৃত বলে ঘোষণা করে শিশু ২টির দেহ একটি প্যাকেটে বন্দি করে পরিবারের হাতে তুলে দেয় হাসপাতাল।

অদৃষ্ট বলে মেনে নিয়ে পরিবারের তরফে ২টি শিশুকে সৎকারের জন্য নিয়ে যাওয়া হয়। কিন্তু সৎকারের আগেই পরিবারের লোকজনের নজরে আসে ২টির মধ্যে একটি শিশুর দেহে প্রাণ আছে। আর দেরি না করে দ্রুত শিশুটিকে স্থানীয় একটি নার্সিং হোমে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসকেরা চিকিৎসা শুরু করে দেন। শিশুটি বেঁচে আছে। তবে তার অবস্থা আশঙ্কাজনক। কিন্তু একটি জীবন্ত শিশুকে মৃত বলে ঘোষণা করে তাকে প্যাকেট বন্দি করে পরিবারের হাতে তুলে দিল কী করে একটি হাসপাতাল? কতটা গাফিলতি না থাকলে এমন হতে পারে? এ প্রশ্ন কিন্তু এখন অনেকেই তুলছেন। খবর কানে যেতেই দ্রুত বিষয়টি নিয়ে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন দিল্লির স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *