National

সমুদ্রের ধারে পর্যটকদের বিশেষ পরিষেবার কথা বলে বেকায়দায় ৩ মহিলা

সমুদ্রের ধারে ছুটিছাটা পেলে অনেকেই বেড়াতে পৌঁছে যান। অনেক সমুদ্রসৈকতে বিদেশিদেরও দেখতে পাওয়া যায়। সেখানেই ৩ মহিলা যা করলেন তা খবর হয়ে গেল।

ভারতে সমুদ্রসৈকতের অভাব নেই। এ রাজ্যে দিঘা সবচেয়ে জনপ্রিয়। তাছাড়াও তাজপুর, মন্দারমণি, বকখালি এবং এমন নানা সমুদ্রসৈকতে পর্যটকদের ভিড় লেগে থাকে। আবার ভারতের সবচেয়ে বেশি প্রচারে থাকা সমুদ্রসৈকত হল গোয়ার সমুদ্রসৈকত।

যেখানে দেশের পাশাপাশি বিদেশি পর্যটকদের ভিড় লেগেই থাকে। সেই গোয়ার অন্যতম ক্যান্ডোলিম বিচে তখন অনেক পর্যটকের ভিড়। সেখানেই ৩ জন মহিলা পর্যটকদের সঙ্গে কথা বলে তাঁদের মাসাজ দেওয়ার কথা বলতে থাকেন।

এটা জানাজানি হতেই পুলিশ ব্যবস্থা নেয়। এভাবে সমুদ্রসৈকতে হাজির পর্যটকদের মাসাজ দিতে চাওয়ার কথা বলতে থাকা ওই ৩ মহিলার এই পরিষেবা প্রদান সংক্রান্ত কোনও ছাড়পত্র ছিলনা।

এভাবে বেআইনিভাবে পর্যটকদের মাসাজ পরিষেবা দিতে চাওয়ায় ওই ৩ মহিলাকে আটকও করে পুলিশ। প্রাথমিকভাবে তাঁদের এই বেআইনি কাজের জন্য জরিমানা করা হয়। মাথা পিছু ২৫ হাজার টাকা করে জরিমানা ধার্য হয়।


ওই টাকা দিতে না পারলে তাঁদের বিরুদ্ধে অন্য ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলেও স্পষ্ট করে প্রশাসন। ডেপুটি ডিরেক্টর অফ ট্যুরিজম এই জরিমানা ধার্য করলেও ওই ৩ মহিলা কিন্তু টাকা দিতে পারেননি।

ক্যান্ডোলিম বিচে মাসাজের একটি ছবি ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়ার পরই পুলিশ দ্রুত বিষয়টি নিয়ে নড়েচড়ে বসে। তারপরই ওই ৩ মহিলাকে বিচ থেকেই আটক করে পুলিশ। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button