National

ভোটের আগে ২ মাস ধরে টানা হাঁটার সিদ্ধান্ত নিলেন অধ্যাপক

ভোট এগিয়ে আসছে। ভোটের দিনক্ষণ ঘোষণা সময়ের অপেক্ষা। তার আগে টানা ২ মাস ধরে হাঁটার সিদ্ধান্ত নিলেন এক অবসরপ্রাপ্ত অধ্যাপক।

লোকসভা ভোটের দামামা বেজে গিয়েছে। ইতিমধ্যেই তাদের প্রথম দফার প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করে দিয়েছে বিজেপি। বাকি দলগুলিরও প্রস্তুতি তুঙ্গে। ভোটের দিনক্ষণ ঘোষণা যা বাকি। তার আগে রাষ্ট্রবিজ্ঞানের এক অধ্যাপক এক অনন্য সিদ্ধান্ত গ্রহণ করলেন। তিনি স্থির করেছেন কম করে ২ মাস তিনি হাঁটবেন। টানা হেঁটে যাবেন শহর, গ্রাম ধরে।

সাংবাদিকদের ডেকে ওই অধ্যাপক জানিয়েছেন তিনি হেঁটে পৌঁছবেন মানুষের কাছে। ভোটারদের কাছে। তবে ভোট চাইতে নয়। কারণ তিনি কোনও দলের প্রার্থীও নন, কোনও দলের প্রচারকও নন। তিনি বোঝাবেন ভোটের গুরুত্ব।


পড়ুন আকর্ষণীয় খবর, ডাউনলোড নীলকণ্ঠ.in অ্যাপ

বোঝাবেন কোনও কিছুর বিনিময়ে যেন মানুষ তাঁর গণতান্ত্রিক অধিকার বিক্রি না করে ফেলেন। সে অর্থ হোক বা অন্য কোনও জিনিসের প্রলোভন।

তাঁদের একটি ভোট গণতন্ত্রের জন্য কতটা দামি তা তাঁদের বোঝাবেন ওই অধ্যাপক। তিনি তাঁর এই পদক্ষেপের নাম দিয়েছেন ভেলোর ডিক্লারেশন।

চেন্নাই বিশ্ববিদ্যালয়ের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগে প্রধান ছিলেন রামু মণিভন্নন। তিনিই এবার কন্যাকুমারী থেকে চেন্নাই পর্যন্ত হাঁটবেন। কার্যত তামিলনাড়ুর দক্ষিণ প্রান্ত থেকে শুরু করে একদম উত্তর পর্যন্ত আসবেন তিনি।

মাঝে পড়বে বহু গ্রাম, শহর। সেখানে মানুষকে ভোট মাহাত্ম্য বোঝাতে বোঝাতে রামু মণিভন্নন এগিয়ে যাবেন। তাঁর এই উদ্যোগে যদি কেউ শামিল হতে চান তিনিও এগিয়ে আসতে পারেন।

রামু মণিভন্নন-এর সঙ্গে পা মেলাতে পারেন। তবে ভোটের মুখে ভোটের গুরুত্ব বোঝাতে তাঁর এই উদ্যোগ ভোটারদের ভোটদান সম্বন্ধে আরও সজাগ করবে বলেই মনে করছেন অনেকে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button