National

১০০ জন মহিলাকে বিউটিশিয়ান বানাল পুলিশ

১০০ জন মহিলা ২ মাসে হয়ে গেলেন বিউটিশিয়ান। এর পিছনে রয়েছে পুলিশ। যা গোটা চত্বরের মানুষের চর্চার কেন্দ্র হয়ে উঠেছে।

এই মহিলাদের বয়স বিভিন্ন। থাকেনও বিভিন্ন জায়গায়। সেখান থেকে তাঁদের খুঁজে বার করে পুলিশ। তারপর তাঁদের ২ মাস ধরে বিউটিশিয়ান হওয়ার প্রশিক্ষণ দেওয়ায়। ফলে ২ মাস আগেও যাঁরা যত্ন করে সাজানোর অআকখ জানতেন না, তাঁরা ২ মাস পর তাতে বেশ পটু হয়ে ওঠেন।

সংখ্যায় ১০০ জন মহিলা কিন্তু অধিকাংশই কেউ কারও চেনা নন। এক গ্রামের বাসিন্দাও নন। কিন্তু এঁদের একটা মিল আছে। এঁরা সকলেই মাওবাদী অধ্যুষিত এলাকার প্রত্যন্ত গ্রামের বাসিন্দা।

যেখানে অর্থাভাব চরম। দারিদ্র নিত্য সঙ্গী। এখানকার মহিলাদের থেকে ১০০ জনকে বেছে নিয়ে তাঁদের বিউটিশিয়ান কোর্স করিয়ে নিজেদের পায়ে দাঁড়ানোর পথ করে দিল চান্দৌলি পুলিশ।

উত্তরপ্রদেশের চান্দৌলি জেলা মাওবাদী অধ্যুষিত এলাকা বলেই পরিচিত ছিল। সেখানকার মহিলাদের নিজেদের পায়ে দাঁড়ানোর পথ করে দিতেই চান্দৌলি পুলিশ তাদের খরচে এই ১০০ মহিলাকে বিউটিশিয়ান কোর্স করাল।


কোর্সে রয়েছে ত্বকের যত্ন, চুলের সাজ, কনে সাজানো সহ নানা ধরনের সৌন্দর্য চর্চায় দক্ষ করে তোলার প্রশিক্ষণ। আগামী দিনে এই বিউটিশিয়ান কোর্স করে ওই মহিলারা নিজেদের পায়ে দাঁড়িয়ে রোজগার করতে পারবেন।

পরনির্ভর হতে হবেনা। এমনকি দারিদ্রের সংসারে একটা ভরসাও হয়ে উঠতে পারবেন তাঁদের এই প্রশিক্ষণকে কাজে লাগিয়ে। যাঁদের এই কোর্সে নেওয়া হয়েছে তাঁদের অধিকাংশই দশম বা দ্বাদশ শ্রেণি পাশ। অর্থের অভাবে এঁদের অনেকেই লেখাপড়া এগিয়ে নিয়ে যেতে পারেননি। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button