National

দিওয়ালীর পরদিন আকাশে দাপটে শাসন করলেন প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে এবার আকাশে দাপটে শাসন করতে দেখা গেল। অবশ্য ভোটের হাওয়ায় এটা প্রত্যাশিতই ছিল। সেটাই দেখা গেল দিওয়ালীর পরদিন।

দিওয়ালীর আনন্দের রেশ যে রবিবার পার করে সোমবারও পূর্ণ মাত্রায় বজায় রয়েছে তা দেখা গেল আকাশের দিকে চেয়ে। তবে দেশের সর্বত্র নয়। নবাবের শহর লখনউতে দিওয়ালীর পরদিন পালিত হয় জমঘট উৎসব। এই উৎসবের প্রধান আকর্ষণ এবার ছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তিনিই এদিন দাপটে শাসন করলেন আকাশ।

জমঘট হল সেই উৎসব যেখানে বহুদিন ধরে চলে আসা রীতি অনুযায়ী বাড়ি বাড়ি থেকে ঘুড়ি ওড়ে আকাশে। যেমন এ রাজ্যে বিশ্বকর্মা পুজোর দিন দেখা যায়, ঠিক তেমনটাই হয় জমঘটের দিন।

দিওয়ালীর পরদিন এই ঘুড়ি ওড়ানোর জন্য মুখিয়ে থাকেন সকলে। আর সেই ঘুড়িতে এবার রাজনীতির ছোঁয়া। লোকসভা নির্বাচন এগিয়ে আসছে। তাই এবার আকাশে ওড়া বড় সংখ্যক ঘুড়িতে দেখা গেল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর মুখ।

তারপরই দেখা গেছে কোনও ঘুড়িতে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের মুখ তো কোথাও বিআর আম্বেদকরের মুখ। আবার এমনও ঘুড়ি উড়েছে যেখানে প্রধানমন্ত্রী ও যোগী আদিত্যনাথের মুখ একসঙ্গে দেখা গেছে।

ঘুড়ি ওড়ানোর আনন্দের সঙ্গে যে রাজনীতির রংও মিশেছে তা বলাই বাহুল্য। তবে কেবল রাজনৈতিক নেতা বলেই নয়, অনেক ঘুড়িতে অন্য সেলেব্রিটিদের ছবিও জায়গা পেয়েছে।

তবে সংখ্যার নিরিখে আকাশ শাসন করেছে প্রধানমন্ত্রীর ছবি দেওয়া ঘুড়ি। এই ঘুড়ির উৎসবে ৩ ধরনের ঘুড়ি আকাশে ওড়ে। ছোট ঘুড়িগুলির নাম ‘মাঝোলি’, মাঝারি মাপের ঘুড়িগুলির নাম ‘আধি’ এবং সবচেয়ে বড় অর্থাৎ ৪০ ইঞ্চি মাপের ঘুড়িগুলির নাম ‘কাঁকাউয়া’। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button