National

গান শুনে ক্ষেপে গেল ঘোড়া, বিয়ের অনুষ্ঠানে জুটল ঘোড়ার পদাঘাত

গান শুনে ঘোড়া যে ক্ষেপে যাবে তা তার মালিকও আন্দাজ করতে পারেননি। এদিকে ক্ষেপে ওঠা ঘোড়া বিয়ের আনন্দে জল ঢেলে দেয়। অনেকের কপালে জোটে পদাঘাত।


বিয়ের অনুষ্ঠানে আনন্দের সীমা ছিলনা। ডিজে বাজছিল। গান চলছিল ৯০-এর দশকের অন্যতম সুপারহিট সিনেমা রাজা হিন্দুস্তানি-র তেরে ইশক মে নাচেঙ্গে। সেই গানের সঙ্গে অনেক কিশোর যুবকের উদ্দাম নাচ দেখছিলেন আশপাশের মানুষজন।


এর মধ্যেই গানের বক্সগুলি যে গাড়িতে বাজছিল সেই সুসজ্জিত গাড়ি থেকে টাকা ওড়ানো শুরু হয়। বাঁধনছাড়া নাচের সঙ্গে শুরু হয় সেই টাকা কুড়োনো। এই সময় অনেকেই আশপাশ থেকে বিয়ের সেই উল্লাস মোবাইলে ক্যামেরাবন্দি করছিলেন।


এদিকে উত্তর ভারতে বিয়ে করতে যাওয়ার সময় বরের ঘোড়ায় করে যাওয়ার প্রচলন রয়েছে। ঘোড়াকে সুন্দর করে সাজানোও হয়।


উত্তরপ্রদেশের হামিরপুরে আবার ঘোড়াকে গানের তালে বিয়ের দিন নাচানোর চলও রয়েছে। এদিনও সেখানে ওই বিয়েতে গানের সঙ্গে নাচতে থাকা কিশোর, যুবকদের সঙ্গে ওই ঘোড়াকেও নাচানোর চেষ্টা করেন তাঁর মালিক। আর সেখানেই ঘটে বিপত্তি।


ঘোড়া নাচতে এসে আচমকা ক্ষেপে ওঠে। মনে করা হচ্ছে প্রবল জোরে বাজতে থাকা গান তাকে কোনও কারণে বিরক্ত করেছিল।


ঘোড়া ক্ষেপে গিয়ে পিছনের ২ পায়ে ভর করে সামনের ২ পা তুলে ভিড়ের মধ্যে দিয়েই ছুটতে থাকে। ঘোড়ার এলোপাথাড়ি পদাঘাতে ছিটকে পড়তে থাকেন মানুষজন। সব আনন্দ মুছে তখন প্রাণ বাঁচাতে হুড়োহুড়ি পড়ে যায়।


অতিকষ্টে কিছুটা সময় পর ঘোড়াকে নিয়ন্ত্রণে আনেন তার মালিক। ততক্ষণে অনেকেই ঘোড়ার পদাঘাতে আহত হয়েছেন। তাঁদের দ্রুত হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। পরে অবশ্য বিয়ে সুষ্ঠুভাবেই সম্পন্ন হয়।


Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *