National

বাবার ইচ্ছাপূরণে নতুন জগন্নাথ মন্দির বানাচ্ছেন ছেলে

বাবা ছিলেন প্রভু জগন্নাথের পরম ভক্ত। বাবার ইচ্ছাপূরণ করতে এবার এগিয়ে এলেন ছেলে। শ্রীক্ষেত্র থেকে কিছুটা দূরে জগন্নাথ মন্দির বানাচ্ছেন তিনি।

পিতার ইচ্ছাপূরণ করতে এগিয়ে এলেন ছেলে। ওড়িশার অন্যতম তীর্থক্ষেত্র পুরীর জগন্নাথ মন্দির। সারা বছর দেশবিদেশ থেকে ভক্তের ঢল লেগেই থাকে এখানে। পুরীর রথযাত্রা সারা বিশ্বের অন্যতম আকর্ষণ।

সেই পুরী থেকে কিছুটা দূরেই রয়েছে ওড়িশার জাজপুর জেলা। কটক লাগোয়া এই জেলার জগতপুর মার্কিন মুলুকে চিকিৎসক হিসাবে কর্মরত ভাস্কর চন্দ্র নায়েকের পৈতৃক গ্রাম। এখানেই কাটিয়েছেন তাঁর পিতা।

তিনি ছিলেন প্রভু জগন্নাথের পরম ভক্ত। তাঁর ইচ্ছা ছিল এই গ্রামে একটি জগন্নাথ মন্দির প্রতিষ্ঠা। তবে মন্দির প্রতিষ্ঠা তো আর মুখের কথা নয়। তাই ইচ্ছা থাকলেও তা বাস্তবায়িত হয়নি। এবার পিতার সেই ইচ্ছা পূরণ করতে এগিয়ে এলেন তাঁর ছেলে।

এনআরআই চিকিৎসক ভাস্কর নায়েক ১ কোটি টাকা দিয়েছেন গ্রামেই জগন্নাথ দেবের মন্দির প্রতিষ্ঠা করার জন্য। তাঁর পাশে রয়েছেন সব গ্রামবাসী। তাঁরা জমি দিয়েছেন মন্দির তৈরি করতে।

এখন বর্ষাকাল। বর্ষায় কাজ শুরু মুশকিল। তাই বর্ষা পার হলেই এই মন্দির প্রতিষ্ঠার কাজ শুরু হয়ে যাবে। তবে তার আগে ভূমি পূজা হয়ে গেছে। গত ১ জুন ভাস্কর ও তাঁর স্ত্রী ইন্দ্রজিতা এই ভূমি পূজা করেন।

মনে করা হচ্ছে এই মন্দির সম্পূর্ণ হতে ১ বছর সময় লাগবে। খরচ হতে পারে ১ কোটি থেকে দেড় কোটি টাকা। আপাতত গোটা গ্রাম মুখিয়ে আছে তাদের গ্রামের নতুন জগন্নাথ মন্দির প্রতিষ্ঠা নিয়ে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button