National

দেড় হাজার বিয়ের কার্ড ছাপিয়ে পাত্রের অভিনব প্রতিবাদ

আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি তাঁর বিয়ে। আর বিয়েতে নিমন্ত্রণ মানে বিয়ের কার্ড ছাপানো। বিয়ের ১৫০০টি কার্ড ছাপিয়ে অভিনব এক প্রতিবাদ আমন্ত্রণ পত্রে জুড়ে দিলেন এক পাত্র।

বিয়ের অনুষ্ঠান বলে কথা। অনেক মানুষ আসবেন। নিমন্ত্রণ পত্র দিয়ে তাঁদের আমন্ত্রণ জানাতে হবে তার আগে। এটাই রেওয়াজ। অন্যথা হয়নি এই বিয়েতেও।

আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি বিয়ে। তার আগে পাত্রের পরিবার ইতিমধ্যেই কার্ড ছাপিয়ে ফেলেছে। কিন্তু কার্ড ছাপানোর সংখ্যায় হতবাক হয়েছেন অনেকেই।

পাত্র নিজেই বিয়ের নিমন্ত্রণ পত্র ছাপিয়েছেন দেড় হাজার। এটা পাত্রের ইচ্ছা মেনেই হয়েছে। আর পাত্রের এমন ইচ্ছার পিছনে রয়েছে এক অভিনব প্রতিবাদ।

পাত্র প্রদীপ কালিরামানা হরিয়ানার ভিওয়ানি জেলার বাসিন্দা। তিনি কার্ডের বয়ানে শুধু বিয়েতে নিমন্ত্রণের কথাই লেখেননি, সেইসঙ্গে জুড়ে দিয়েছেন কৃষক আন্দোলনকেও।

কৃষি উৎপাদনের ওপর ন্যূনতম সমর্থন মূল্য স্থির করা নিয়ে বারবার আবেদন করে এসেছেন কৃষকরা। সেই আন্দোলন এখনও জারি আছে। প্রদীপ কার্ডে লিখেছেন ‘জঙ্গ আভি জারি হ্যায়, এমএসপি কি বারি হ্যায়’।

প্রদীপ জানিয়েছেন দিল্লি সীমান্তে ১ বছরের ওপর ধরে চলেছে কৃষক আন্দোলন। কেন্দ্রীয় সরকারের কৃষি আইন সংশোধনে যুক্ত হওয়া ৩টি নয়া আইন কৃষক আন্দোলনের মুখে ফেরত নিতে বাধ্য হয়েছে সরকার। সেই আন্দোলনে শামিল হয়েছিলেন প্রদীপ।

তিনি জানিয়েছেন এখনও কৃষকদের আন্দোলন বজায় থাকবে। এবার ন্যূনতম সমর্থন মূল্য নিয়ে আন্দোলন বজায় থাকবে। নিমন্ত্রণ পত্রে একটি ট্রাক্টরের ছবি দিয়ে তার তলায় লেখা হয়েছে ‘নো ফার্মার, নো ফুড’। অর্থাৎ কৃষকরা না থাকলে খেতেও পাবেন না। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.