National

ড্রাগের নেশায় নতুন সাজ, তবু পুলিশের নজর এড়াতে পারল না ২ যুবক

২ যুবক পুলিশকে জানায় তারা করোনা চিকিৎসায় রয়েছে, কাজে যাচ্ছে

দেশজুড়ে লকডাউন চলছে। লখনউ তার ব্যতিক্রম নয়। কেউ বাড়ি থেকে বার হতে পারছেন না। রাস্তায় বার হলেই পুলিশের জিজ্ঞাসার মুখে পড়তে হচ্ছে। এভাবেই প্রশ্নের মুখে পড়তে হয় ২ যুবককে।

লখনউয়ের পলিটেকনিক মোড়ের কাছে ওই ২ যুবকের পথ আটকায় পুলিশ। যদিও আপাত দৃষ্টিতে তাদের পথ আটকানোর কথা ছিলনা। কারণ তারা চিকিৎসকের পোশাকে ছিল।

২ যুবক পুলিশকে জানায় যে তারা করোনা চিকিৎসায় রয়েছে। কাজে যাচ্ছে। এমনিতে লকডাউনে চিকিৎসকদের যাতায়াতে কোনও বাধানিষেধ নেই। কিন্তু ২ যুবকের মধ্যে ১ জনকে দেখে পুলিশের আচ্ছন্ন বলে সন্দেহ হয়।

পুলিশ এরপর জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে। তারপর ২ যুবকের তল্লাশি শুরু করেন পুলিশকর্মীরা। তল্লাশিতে ২ জনের কাছ থেকে উদ্ধার হয় নিষিদ্ধ মাদক হেরোইন।


পুলিশ জানাচ্ছে ২ যুবকই মাদকাসক্ত। মাদকের নেশায় তারা হেরোইন খুঁজতে চিকিৎসকের পোশাক পরে চিকিৎসক সেজে বেরিয়ে পড়েছিল। এদের মধ্যে ১ যুবক কিং জর্জ হাসপাতালে প্যারা মেডিক্যাল কর্মী হিসাবে কাজ করে।

পুলিশের ধারণা সেখান থেকেই এই চিকিৎসকের পোশাক যোগাড় করে তারা। এদের ২ জনকেই গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তাদের কাছ থেকে ১১ গ্রাম হেরোইন উদ্ধার হয়েছে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button