Sunday , September 22 2019
Muslim Woman
প্রতীকী ছবি

চিউইং গাম খেতে রাজি না হওয়ায় স্ত্রীকে তালাক দিল স্বামী

আদালত চত্বরে তখন যথেষ্ট ভিড়। বছর ৩০-এর এক মুসলিম মহিলা কথা বলছিলেন তাঁর আইনজীবীর সঙ্গে। সেই সময় তাঁর স্বামী এসে তাঁকে চিউইং গাম খেতে দেয়। কিন্তু সিম্মি নামে ওই মহিলা তখন চিউইং গাম খেতে ইচ্ছে নেই বলে জানিয়ে দেন। তাতেই রেগে যান স্বামী। আদালত চত্বরে দাঁড়িয়ে, ওই মহিলার আইনজীবীর সামনেই তাঁকে ৩ তালাক দেন সৈয়দ রশিদ নামে ওই ব্যক্তি। এমন ঘটনায় কার্যত হকচকিয়ে যান আশপাশে থাকা মানুষজন। একটা সামান্য চিউইং গাম খেতে না চাওয়ায় যে স্ত্রীকে তালাক বলা যায় সেটাই সপ্তম আশ্চর্যের মত লাগছিল তাঁদের।

বুধবার ঘটনাটি ঘটে লখনউ আদালত চত্বরে। সিম্মি নামে ওই মহিলার সঙ্গে সৈয়দের বিয়ে হয় ২০০৪ সালে। সম্প্রতি ওই মহিলা তাঁর স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির অন্য সদস্যদের বিরুদ্ধে পণের জন্য চাপ দেওয়ার অভিযোগ জানিয়ে আদালতে মামলা করেন। সেই মামলার শুনানি ছিল এদিন। স্বামীর সঙ্গেই আদালতে হাজির হয়েছিলেন সিম্মি। তারপর নিজের আইনজীবীর সঙ্গে দরকারি কথায় ব্যস্ত হন। তখনই ঘটে এই চিউইং গাম কাণ্ড।

ভারতে এখন আইনত ৩ তালাক নিষিদ্ধ। ৩ তালাক দিয়ে স্ত্রীকে ত্যাগ করার চেষ্টা হলে আইনানুগ ব্যবস্থা রয়েছে। পুলিশ সেই পথেই হেঁটেছে। মুসলিম ওম্যান (প্রোটেকশন অফ রাইটস অন ম্যারেজ) অ্যাক্ট, ২০১৯ মেনে সৈয়দ রশিদের বিরুদ্ধে একাধিক ধারায় মামলা করা হয়েছে। পুলিশ বিষয়টির তদন্ত শুরু করেছে। অভিযোগ প্রমাণ হলে কড়া শাস্তির মুখেই পড়তে হতে পারে রশিদকে। ৩ বছর পর্যন্ত হাজতবাসও করতে হতে পারে তাঁকে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *