National

টিকা নিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

করোনা টিকা নিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সোমবার দিল্লির এইমস-এ টিকা নেন তিনি। টিকা নেওয়ার পর তিনি কী বলেছেন তা জানিয়েছেন টিকা প্রদানকারী নার্স।

নয়াদিল্লি : করোনা টিকার দ্বিতীয় পর্যায় শুরু হল সোমবার পয়লা মার্চ থেকে। এদিন থেকে দেশ জুড়ে শুরু হল ৬০ বছরের ওপর ও ৪৫ বছরের ওপর অন্য অসুখ থাকা মানুষদের টিকাকরণ। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ষাটোর্ধ হওয়ায় তিনি এই পর্যায়ে টিকা পেতেই পারেন। সোমবার প্রথম দিনে সকালেই তিনি টিকা নিয়েও নিলেন।

সোমবার সকালে দিল্লির এইমস-এ টিকা গ্রহণ করেন প্রধানমন্ত্রী। তাঁকে টিকা দেওয়ার দায়িত্বে ছিলেন ২ নার্স রোজাম্মা অনিল ও পি নিবেদা। টিকা দেন পি নিবেদা।

এদিন টিকা প্রদানের পর প্রধানমন্ত্রী কথাও বলেন নার্সদের সঙ্গে। তিনি বলেন, তাঁকে টিকা দেওয়া হয়ে গেল অথচ তিনি বুঝতেই পারলেন না! পরে প্রধানমন্ত্রী ট্যুইট করে টিকাগ্রহণের কথা জানান। যাঁরা টিকা নেওয়ার যোগ্য তাঁদের সকলকে টিকা গ্রহণের জন্য আহ্বান জানান তিনি।

প্রধানমন্ত্রীর দফতর থেকে জানানো হয়েছে এদিন প্রধানমন্ত্রীকে টিকা দেওয়ার জন্য বিশেষ কোনও রাস্তার বন্দোবস্ত করা হয়নি। কারও কোনও সমস্যা না করেই তাঁকে টিকা দেওয়া হয়।

কোন টিকাটি নিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী? এ প্রশ্ন সকলের। তারও উত্তর মিলেছে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী হায়দরাবাদের ভারত বায়োটেক-এর তৈরি কোভ্যাক্সিন টিকা গ্রহণ করেছেন। যা হয়তো তাঁরই স্লোগান আত্মনির্ভর ভারতের রাস্তা প্রশস্ত করল।

কোভ্যাক্সিন এখনও টার ট্রায়াল পর্যায় শেষ করেনি। তাই অনেকেই কোভ্যাক্সিন নিতে কিন্তু কিন্তু করছেন। এদিন প্রধানমন্ত্রী কোভ্যাক্সিন নেওয়ার পর দেশের অনেক মানুষই আগামী দিনে কোভ্যাক্সিন নিতে আর দ্বিধা করবেন না বলেই মনে করা হচ্ছে। প্রসঙ্গত এটা ছিল প্রধানমন্ত্রীর প্রথম ডোজ। ২৮ দিন পর তাঁকে টিকার দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া হবে।

ভারতে এখন ২টি টিকা দেওয়া হচ্ছে। একটি কোভ্যাক্সিন। যার গায়ে রয়েছে ভারতেই তৈরি টিকার তকমা। অন্যটি সেরাম ইন্সটিটিউটের তৈরি অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের টিকা কোভিশিল্ড। ভারতে অধিকাংশ মানুষ টিকা হিসাবে কোভিশিল্ড নিতে বেশি আগ্রহী বলে দেখা যাচ্ছে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button