Entertainment

বাথরুমে আটকে তাঁর ডান বুক চেপে ধরে প্রযোজক, আদালতে দাবি অভিনেত্রীর

সারা গায়ে চুল। গায়ে আঁচিল ছিল। আর তার বিশেষ অঙ্গটি জঘন্য চেহারার। স্বাভাবিক নয়। তবে সেদিন তিনি কেবল তার অঙ্গটিই দেখতে পেয়েছিলেন। ভরা আদালতে এভাবেই অভিযুক্ত হলিউড প্রযোজক হার্ভে ওয়েনস্টেইন-এর বিরুদ্ধে মুখ খুললেন মডেল অভিনেত্রী লরেন ইয়ং। এদিন আদালতে হার্ভের বিরুদ্ধে বলতে গিয়ে লরেন যা বলেন তা শুনে থ অনেকেই। ইয়ং আদালতকে জানান একটি হোটেলের বাথরুমে কীভাবে হার্ভে আচমকা তাঁর ডান বুক চেপে ধরে। তাঁর বৃন্ত টিপে ধরে চাপ দিতে থাকে। এই অবস্থায় তাঁকে ঠেলে বেসিনের কোণায় চেপে দেয়। ইয়ং খোলাখুলি আরও জানান, কীভাবে সেখানে হার্ভে জামাকাপড় খুলে ফেলে তাঁর সামনে। তারপর তাঁর সামনেই কুকর্ম করে।

পড়ুন : যৌন সম্পর্ক স্থাপনের জন্য কার্যত ভিক্ষা চাইতেন নওয়াজউদ্দিন, বিস্ফোরক ভারত সুন্দরী

যেভাবে ভরা আদালতে ইয়ং মুখ খোলেন তা নিয়ে সকলেই কিছুটা থতমত খেয়ে যান। এতটা খোলাখুলি যে তিনি বলতে পারবেন তা বোধহয় খোদ হার্ভেও আশা করেনি। ইয়ং কিন্তু পুরো ঘটনার কথা লস অ্যাঞ্জেলসের আদালতের সামনে তুলে ধরেন। তিনি জানান ২০১৩ সালে একটি স্ক্রিপ্ট নিয়ে আলোচনা করতে তাঁকে বেভারলি হিলসের একটি বিলাসবহুল হোটেলে ডেকে পাঠায় হার্ভে। হলিউডের বড় প্রযোজক ডেকেছে। তাই নিজের সবচেয়ে দামি পোশাকটা গায়ে চড়িয়ে সেখানে হাজির হন ইয়ং। মেক্সিকান মডেল ক্লডিয়া স্যালিনাস তাঁকে হার্ভের নিমন্ত্রণের কথা জানান বলে আদালতকে জানান ইয়ং। এও জানান, তিনি ক্লডিয়ার সঙ্গেই হার্ভের জন্য অপেক্ষা করেন।

পড়ুন : তাঁর বক্ষ বিভাজিকা দেখতে চেয়েছিলেন এক নির্দেশক, মুখ খুললেন সুরভিন চাওলা

হার্ভে তাঁকে নিয়ে পরে হোটেলের ঘরে হাজির হন। সঙ্গে ছিলেন ক্লডিয়াও। সেখানে তাঁকে নিয়ে বাথরুমে প্রবেশ করার পর দরজা বন্ধ হয়ে যায়। বাইরে ক্লডিয়াকে রেখে দরজা বন্ধ করে হার্ভে। তারপর নিজের পরনের পোশাক খুলে ফেলে। প্রথমে তা দেখে হেসে ফেলেন ইয়ং। তারপর আতঙ্কে বাথরুম ছেড়ে বার হওয়ার চেষ্টা করেন। কিন্তু বিফল হন। তাঁর সামনে এসে দাঁড়ায় হার্ভে। তারপর তাকে জানায়, সব অভিনেত্রীকেই একাজ করতে হয়। ইয়ং চেঁচাতে থাকেন নো, নো, বলে। এই অবস্থায় তাঁর ডান বুক সজোরে চেপে ধরে হার্ভে। তাঁর বৃন্তটিও টিপে ধরে। বুক চেপে ধরেই তাঁকে ঠেলে বেসিনের কাছে নিয়ে যায় সে। তারপর অন্য হাতে তাঁর শরীরটা চেপে ধরে। তাঁর পোশাকের চেন খুলে দেয়। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button