National

দেশের ৩টি ট্রেনে চড়লে চা ও খাবারের জন্য গুনতে হবে বেশি টাকা

ট্রেনে সফরকালে অনেকেই ব্রেকফাস্ট, লাঞ্চ বা ডিনার কিনে নেন। চা যে সবসময় স্টেশনে নেমেই পান করা সম্ভব হয় তাও নয়। ফলে সেটাও ট্রেনে সফরকালে কিনেই খেতে হয়। দেশের ৩টি প্রথমসারির ট্রেন রাজধানী, শতাব্দী ও দুরন্ত এক্সপ্রেসও তাই। এখানে অবশ্য কোন শ্রেণিতে যাত্রা করছেন যাত্রী তারওপর নির্ধারিত চা ও খাবারের দাম। সেই দাম এবার বাড়তে চলেছে। ৩টি ট্রেনেই সফররত যাত্রীদের চা ও খাবার কিনতে গেলে গুনতে হবে আরও বেশি টাকা। ৩ থেকে ৯ শতাংশ বাড়ছে দাম।

চায়ের দাম কাপ প্রতি বাড়ছে ৬ টাকা করে। অন্যদিকে ব্রেকফাস্ট ও ডিনারের দাম বাড়ছে ৭ থেকে ১৫ টাকা করে। শ্রেণির ভিত্তিতে দামের সামান্য ফারাক হবে। যা এখনও রয়েছে। যেমন, এই ৩টি ট্রেনের প্রথম শ্রেণির এসি কোচে রেল চায়ের দাম নেয় ৩৫ টাকা। তা ৬ টাকা বাড়ছে। অন্যদিকে এই শ্রেণিতে ব্রেকফাস্টের জন্য ১৪০ টাকা ও ডিনারের জন্য ২৪৫ টাকা এখন গুনতে হয়। তাও বাড়ছে প্রায় ১৫ টাকা করে। এদিকে এসি-টু টায়ার, এসি-থ্রি টায়ার ও চেয়ার কারে বর্তমানে চায়ের দাম কাপ প্রতি ২০ টাকা, ব্রেকফাস্ট ১০৫ টাকা ও লাঞ্চ বা ডিনার ১৮৫ টাকা। সেই দামও বাড়ছে।

রেলের তরফে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। রেলওয়ে বোর্ডের বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। ফলে রাজধানী, শতাব্দী ও দুরন্ত এক্সপ্রেসের যাত্রীদের আগামী দিনে এই অতিরিক্ত অর্থ সফরকালে ব্যয় করতে হবে। পাশাপাশি রেলওয়ে আরও একটি সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এবার থেকে যে জায়গার ওপর দিয়ে ট্রেনটি যাবে সেখানকার নিজস্ব যে স্ন্যাকস রয়েছে তা এবার থেকে যাত্রীদের দেওয়া হবে। ফলে সেই জায়গার বৈশিষ্ট্য সম্পন্ন জিভে জল আনা স্ন্যাকস এবার সফরকালেই চেখে দেখার সুযোগ পাবেন যাত্রীরা। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.