Friday , December 13 2019
Cigarette
প্রতীকী ছবি

সিগারেটের চেয়েও ভয়ংকর

সিগারেট যে স্বাস্থ্যের পক্ষে ক্ষতিকর এ নিয়ে দ্বিমতের জায়গা নেই। চিকিৎসক থেকে গবেষক সকলেই জানিয়েছেন সিগারেট মারণ ব্যাধি ডেকে আনে। যার উদাহরণও গুনে শেষ করা যাবে না। ফলে সিগারেট খাওয়া থেকে দূরে থাকতে হবে। কিন্তু যাঁরা ধূমপায়ী তাঁদের বিকল্প পথ কী? সেই বিকল্পের হদিস দিতে বাজারে আছে ই-সিগারেট। যাতে সিগারেটের মৌতাতটা আছে কিন্তু তার ক্ষতিকারক দিকটি নেই! অন্তত এমনই একটি বিষয়কে প্রচারে আনা হয়েছিল। অবশ্য সময়ের সাথে এটা এখন প্রমাণিত যে ই-সিগারেটেও ক্ষতি নেহাত কম নয়। তাহলে কোনটা বেশি ক্ষতিকর, সিগারেট না ই-সিগারেট?

গবেষকরা জানাচ্ছেন সিগারেটের চেয়েও ভয়ংকর প্রভাব পড়ছে ই-সিগারেটের। তাঁরা জানাচ্ছেন, চিরাচরিত সিগারেটের নিকোটিন শরীরে প্রবেশ করে হার্টের ক্ষতি করে ঠিকই। তাই তা বর্জনীয়। কিন্তু তুলনায় তার বিকল্প হিসাবে আসা ই-সিগারেট আরও ভয়ংকর। ইলেকট্রনিক নিকোটিন ডেলিভারি সিস্টেমই হল ই-সিগারেট। সেক্ষেত্রে দেখা গেছে হার্টের যে ক্ষতি ই-সিগারেট করে ততটা চিরাচরিত সিগারেটও করেনা।

E-Cigarette
প্রতীকী ছবি

অনেক দেশে সিগারেটের কুপ্রভাবের প্রচার হওয়ায় ধূমপায়ীরা সিগারেট ছেড়ে ই-সিগারেটের দিকে ঝুঁকেছিলেন। কিন্তু দেখা যাচ্ছে তার ক্ষতিকারক দিক আরও খারাপ। ফলে সিগারেট বা ই-সিগারেট, কোনওটিই শরীরের পক্ষে ভাল নয় বলে সতর্ক করেছেন গবেষকরা। হৃদযন্ত্র বা ফুসফুসের ওপর এর প্রবল খারাপ প্রভাব পড়ে। ক্যানসারের ঝুঁকির কথা তো সিগারেটের প্যাকেটের ওপরই দেওয়া থাকে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *