Health

গর্ভাবস্থায় এই কাজটি করলে শিশুর ওবেসিটির সম্ভাবনা প্রবল

মহিলা গর্ভবতী হওয়ার পর তাঁর গর্ভস্থ সন্তানেরও একটি বড় ক্ষতি ডেকে আনতে পারে। গর্ভস্থ সন্তানের স্থূলাকৃতি হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

আধুনিক জীবনে অনেক মহিলাই ধূমপান করে থাকেন। সিগারেট খাওয়ার অভ্যাস অনেকের মধ্যেই দেখতে পাওয়া যায়। বিবাহিত জীবনেও অনেকে ধূমপান পুরোদস্তুর চালিয়ে যান। তাঁতে তাঁদের শারীরিক ক্ষতির সম্ভাবনা থেকে যায়।

কিন্তু সেই মহিলা গর্ভবতী হওয়ার পর তাঁর গর্ভস্থ সন্তানেরও একটি বড় ক্ষতি ডেকে আনতে পারে ধূমপান। তেমনই জানাচ্ছেন মার্কিন মুলুকের কেন্টাকি বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকেরা।

কী সেই ক্ষতি? গবেষকরা জানাচ্ছেন, গর্ভাবস্থায় ধূমপান করলে গর্ভস্থ সন্তানের স্থূলাকৃতি হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। যাকে চিকিৎসাশাস্ত্রে ‘ওবেসিটি’ বলা হয়। সহজ বাংলায় মোটা হওয়ার সমস্যা।

গবেষকরা মনে করছেন মায়ের ধূমপান শিশুর দেহে জিনগত পরিবর্তন আনে। যা দেহে ফ্যাট সেলের বৃদ্ধি ঘটায়। যা থেকে শিশু মোটা হওয়ার সমস্যায় পড়ে।


যদিও গবেষকরা একথাও মেনে নিচ্ছেন যে ফ্যাট সেল বৃদ্ধিই যে একমাত্র কারণ এমন নাও হতে পারে। মায়ের ধূমপানে শিশুর মোটা হওয়ার আরও অনেক কারণ থাকতে পারে। যা এখনও গবেষণা সাপেক্ষ।

গবেষকরা জানাচ্ছেন, তাঁরা দেখেছেন মা ধূমপান করলে শিশুর দেহে ক্যামেরিন জিনে পরিবর্তন আসে। এটাকেই শিশুর মধ্যে স্থূলতা লক্ষ্য করার বড় কারণ বলে মনে করছেন তাঁরা। তবে এ বিষয়ে আরও গবেষণার প্রয়োজন আছে বলে মেনে নিচ্ছেন গবেষকরা। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button