World

৩৯ হাজার টাকার অন্তর্বাস কিনে বিপাকে, খবর ছড়াতেই দলত্যাগ

৩৯ হাজার টাকার অন্তর্বাস কিনেছিলেন পার্লামেন্টের সদস্য হিসাবে বরাদ্দ তহবিল থেকে। কিনেছিলেন বহুমূল্য জামাকাপড়। অবশেষে দলত্যাগ করলেন তিনি।

হিসাব বলছে তিনি মাত্র ৩ মাসে ভারতীয় মুদ্রায় সাড়ে ৬ লক্ষ টাকার বেশি খরচ করেছেন জামাকাপড় কেনায়। সেইসঙ্গে ভারতীয় মুদ্রায় ৩৯ হাজার টাকার বেশি খরচ করে কিনেছেন দামি অন্তর্বাস। অন্তর্বাস কেনার জন্য তিনি বেছে নিয়েছিলেন প্রখ্যাত সব বুটিককে।

দার্জিলিং থেকেও বহুমূল্য অন্তর্বাস কিনেছিলেন ৩৯ বছরের এই মহিলা পার্লামেন্ট সদস্য। কিন্তু তারপর যখন একজন পার্লামেন্ট সদস্য হিসাবে বরাদ্দ তহবিলের খরচ খতিয়ে দেখা হয় তখনই তিনি বিপাকে পড়েন।

যদিও তিনি সাফ জানিয়েছেন তাঁকে ভুল বোঝানো হয়েছিল। এই খরচ যে তিনি করতে পারবেননা তা তাঁকে জানানো হয়নি। অন্তর্বাস থেকে অন্য জামাকাপড় তাঁকে কিনতে হয়েছিল একজন পার্লামেন্ট সদস্য হিসাবে সঠিক পোশাক পরতে।

পার্লামেন্ট সদস্য হওয়ার আগে তিনি এসব পোশাক পরতেন না। তাহলে ৩ মাসে ৩৯ হাজার টাকার শুধু অন্তর্বাস! অনেকেই হতবাক হচ্ছেন।

ফ্রান্সের মসনদে দ্বিতীয়বারের জন্য ফিরেছেন এমানুয়েল মাক্রোঁ। তাঁরই দলের সদস্য হিসাবে ২০১৭ সালে নির্বাচিত হন কোরালি দুঁবোস্ত।

পার্লামেন্ট সদস্য হওয়ায় তাঁর নামে যে তহবিল বরাদ্দ হয়, তা থেকে তিনি পোশাক কেনা, অন্তর্বাস কেনা, হোটেলে খাওয়া, এদিক ওদিক যাওয়া, সব খরচ করতে থাকেন।

এভাবে ৩ মাস তিনি চালিয়ে যান। যার একটা মোটা বিল হয়। সেই বিল খতিয়ে দেখে অনেকের চোখই কপালে উঠেছে।

এদিকে কোরালি দুঁবোস্তর বিরুদ্ধে তহবিল নয়ছয়ের অভিযোগ ওঠার পর কোরালি দলত্যাগ করেন। তবে তাঁর এই তহবিল থেকে খরচের জন্য তিনি অনুতপ্ত নন। তাঁর মতে, তিনি জানতেন না কিসে খরচ করা যাবে আর কি ক্ষেত্রে যাবেনা। তাঁকে ভুল বোঝানো হয়েছিল।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.