State

৩ জেলায় তাপপ্রবাহের সতর্কতা, মিলল না কালিদাস, গঙ্গার আদি বিশ্বাস

৩টি জেলায় তাপপ্রবাহের সতর্কতা শোনাল আবহাওয়া দফতর। এদিকে আদি অনন্ত বিশ্বাসও মিলল না। রাত পর্যন্ত অপেক্ষা করেও রবিবার বৃষ্টি হল না।

রাজ্যের ৩টি জেলায় তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি করেছে আবহাওয়া দফতর। মধ্য জুন পার করেও গরম যে কে সেই। অস্বস্তি চরমে। সহ্য করতে করতে ধৈর্যের বাঁধও ভেঙেছে। কিন্তু কিছু করারও নেই। রাজ্যের দক্ষিণভাগের আবহাওয়ার ধরনটাই যেন বদলে গেছে।

যেখানে দেশে এবার অনেক আগেই বর্ষার প্রবেশ ঘটেছে, যেখানে উত্তরবঙ্গ বৃষ্টির জেরে নাজেহাল, সেখানে কেবল দক্ষিণবঙ্গ পুড়ছে। সোমবারও পশ্চিম মেদিনীপুর, পুরুলিয়া এবং পশ্চিম বর্ধমানে তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি হয়েছে।

তাপপ্রবাহ হলেও এই ৩ জেলা সহ বাকি জেলাগুলিতে রবিবারের পর সোমবারও বজ্র বিদ্যুৎসহ বৃষ্টির পূর্বাভাস জারি করেছে আবহাওয়া দফতর। যা দেখে মানুষের মনে আশার সঞ্চার হচ্ছে।

কিন্তু দিনভর অপেক্ষার পর তা নিভেও যাচ্ছে। বর্ষা কবে আসবে সে চিন্তা ছেড়ে আপাতত একটা ঝেঁপে বৃষ্টি চাইছেন সকলে। তাতে অন্তত এই চরম পরিস্থিতিতে কিছুটা হলেও প্রলেপ পড়তে পারে।


রবিবার ছিল আষাঢ় মাসের প্রথম দিন। খাতায় কলমে বর্ষার মাস শুরু হয়ে গেল বঙ্গে। মহাকবি কালিদাসের লেখা মেঘদূত কাব্যের সেই আষাঢ়স্য প্রথম দিবসে বৃষ্টির কথা আজও মানুষ বিশ্বাস করেন।

বঙ্গবাসী মনে করেন আষাঢ়স্য প্রথম দিবসে একটু হলেও বৃষ্টি হবে। মিলেও যায় কালিদাস রচিত এই ভাবনা। রবিবার তার সঙ্গে ছিল গঙ্গা পুজোর দিন দশহরা।

এটাও বাঙালির প্রাচীন বিশ্বাস যে দশহরা মানে একটু হলেও বৃষ্টি হবে। বৃষ্টির সঙ্গে দশহরা কোথায় যেন মিলে যায়। কিন্তু এবার আবহাওয়া সে বিশ্বাসও চুরমার করে দিয়েছে।

গত রবিবার আষাঢ়স্য প্রথম দিবস এবং দশহরা সত্ত্বেও বৃষ্টির ছিটেফোঁটা দেখা যায়নি। বরং গরম দেখে মনে হয়েছে আষাঢ় নয়, বৈশাখ শুরু হল।

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button