SciTech

হাতে আর মাত্র ২৮ বছর, বিশ্বের প্রায় প্রতিটি শিশু ভুগতে চলেছে একটি রোগে

হাতে আর মাত্র ২৮ বছর আছে। তারপর একটি বিশেষ রোগের শিকার হতে থাকবে বিশ্বের প্রায় প্রতিটি শিশু। এমনই দাবি করল ইউনিসেফ।

হাতে আর বেশিদিন নেই। ইউনিসেফ বা ইউনাইটেড নেশনস ইন্টারন্যাশনাল চিলড্রেনস এমারজেন্সি ফান্ড। রাষ্ট্রসংঘের এই সংগঠন বিশ্বের শিশুদের নিয়ে কাজ করে। সেই ইউনিসেফ এবার সতর্ক করল গোটা বিশ্বকে।

তাদের পূর্বাভাস ২০৫০ সালের মধ্যে বিশ্বের প্রায় প্রতিটি শিশু একটি বিশেষ রোগে আক্রান্ত হতে থাকবে। তা হল সানস্ট্রোক।

ইউনিসেফ যে নতুন রিপোর্ট প্রকাশ করেছে তাতে তারা আশঙ্কা জানিয়েছে যে ২০৫০ সালের মধ্যে বিশ্বের প্রায় সব শিশুই সানস্ট্রোকে আক্রান্ত হবে এবং একবার নয় বারবার আক্রান্ত হবে।

গ্লোবাল ওয়ার্মিং সম্বন্ধে তো সকলেই এখন কম বেশি ধারনা রাখেন। গ্রিনহাউস গ্যাস যেভাবে নির্গত হচ্ছে তাতে তা বিশ্বের স্বাভাবিক তাপমাত্রার ধারনা ভেঙে দিয়েছে। ২০৫০ সালের মধ্যে আশঙ্কা করা হচ্ছে গ্রিনহাউস গ্যাস নির্গমন আরও বাড়বে।


যার জেরে পারদ এখনকার চেয়ে আরও ২ ডিগ্রির ওপর বৃদ্ধি পাবে। আর এই পারদ বৃদ্ধি শিশুদের মধ্যে সানস্ট্রোকে আক্রান্ত হওয়া বাড়িয়ে দেবে।

ইউনিসেফ আশঙ্কা প্রকাশ করে জানিয়েছে শিশুদের ওপর এই পারদ বৃদ্ধির প্রভাব সবচেয়ে বেশি পড়বে আফ্রিকা ও এশিয়ায়। এখানে শিশুরা সবচেয়ে বেশি সানস্ট্রোকের শিকার হবে।

আগুনে গরম সব বয়সের মানুষকেই বিপদে ফেলবে। বিশ্বের প্রায় ৫৬ কোটি শিশু এখনই প্রবল তাপপ্রবাহের শিকার। যা ২০৫০ সালের মধ্যে ২০০ কোটিতে পৌঁছবে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button