World

দোকানদার জানতেন না পেন্টিংটার মূল্য, জলের দরে লটারি পেলেন অধ্যাপক

দোকানদার জানতেন না তাঁর দোকানে সাজানো পেন্টিংটা কতটা দামি। তিনি তা বেচে দিলেন জলের দরে। আর তা কিনে নিতে দেরি করলেন না এক অধ্যাপক।

পেন্টিংটা কোনও ভারতীয় চিত্রকরের নয়। যিনি ছবিটা এঁকেছিলেন তিনি জর্জিয়ার বাসিন্দা ছিলেন। মাত্র ৩৪ বছর বয়সে মারাও যান। অসামান্য প্রতিভাধর ওই চিত্রকরের আঁকা ছবিগুলি কার্যত অমূল্য। তাঁর অনেক ছবি মিউজিয়ামে জায়গা পেয়েছে। বিক্রি করতে গেলে যে ছবির দাম কোথায় চড়ত কারও জানা নেই।

প্রয়াত চিত্রকর কিথ ব্যাঙ্কস্টোনের আঁকা তেমনই একটি ছবি টেক্সাসের একটি কমদামী জিনিসের দোকানে দেখতে পান টেক্সাস বিশ্ববিদ্যালয়ের এক অধ্যাপক। জহুরির চোখ ক্যানভাস চিনতে ভুল করেনি।

তিনি বুঝতে পারেন এ ছবি সম্ভবত আসল। কিন্তু দোকানদার তা জানেন না। তিনি নিছক ঘর সাজানোর ছবি হিসাবে ওটা বিক্রি করছেন। অধ্যাপক আর সময় নষ্ট করেননি। ভারতীয় মুদ্রায় ১০ হাজারের কম টাকা খরচ করে ওই ছবি তিনি কিনে নেন।

বাড়ি ফিরে তিনি পরখ করে দেখেন তিনি যা ভেবেছিলেন সেটাই সত্যি। ছবিটি আসল। বিখ্যাত চিত্রকর কিথ ব্যাঙ্কস্টোনের আঁকা। ১৯৮২ সালে ‘ইভ ইন দ্যা রোজ গার্ডেন’ নামে এই ছবিটি আঁকেন তিনি।


এটির মূল্য কত হতে পারে তা অজানা হলেও এটা অধ্যাপক উইলিয়াম পাগের বুঝতে অসুবিধা হয়নি যে এই ছবি যদি তিনি বেচতে চান তাহলে বিশাল একটা অঙ্ক তিনি এক লহমায় পকেটে পুরতে পারেন। কিন্তু অধ্যাপক তা করেননি।

তিনি ছবিটি নিয়ে গিয়ে টাবম্যান আফ্রিকান আমেরিকান মিউজিয়ামের হাতে তুলে দেন। যা ওই মিউজিয়াম সাধারণ মানুষের দেখার জন্য প্রদর্শনের ব্যবস্থা করেছে। ওই মিউজিয়ামে কিথের আরও ছবি প্রদর্শনের জন্য রাখা আছে। অধ্যাপকের এই আচরণের তারিফ করছেন সকলেই।

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button