National

সিনেমা হলে জাতীয় সঙ্গীত, কেন্দ্রের কোর্টে বল ঠেলল সুপ্রিম কোর্ট

১১ মাস আগে সিনেমা হলে সিনেমা শুরুর আগে বাধ্যতামূলকভাবে জাতীয় সঙ্গীত বাজানো ও সেই সময়ে উঠে দাঁড়ানোর নির্দেশ দিয়েছিল সুপ্রিম কোর্ট। এদিন কেরালার একটি সিনেমা সংগঠনের অবেদনের ভিত্তিতে সুপ্রিম কোর্ট তাদের সেই নির্দেশে পরিবর্তন আনার ইঙ্গিত দিল। এদিন শীর্ষ আদালত স্পষ্ট জানিয়েছে দেশপ্রেমের নামে নৈতিক পুলিশগিরি চলতে পারেনা। সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্র, বিচারপতি এ এম খানিলকর এবং বিচারপতি ডি ওয়াই চন্দ্রচূড়কে নিয়ে গঠিত ৩ সদস্যের ডিভিশন বেঞ্চ এদিন কেন্দ্রকে স্পষ্ট জানিয়ে দেয় যে সিনেমা হলে জাতীয় সঙ্গীত বাধ্যতামূলক করতে হলে কেন্দ্রকেই আইন আনতে হবে। এটা কেন্দ্রের আওতাধীন বিষয়।

সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ বহাল রাখার জন্য কেন্দ্র চাপ দিতে পারে না। যা করার কেন্দ্রকে আগামী ৯ জানুয়ারির মধ্যে করারও নির্দেশ দিয়েছে আদালত। সেইসঙ্গে আদালত জানিয়ে দিয়েছে জোর করে কাউকে জাতীয় সঙ্গীতের সময় উঠে দাঁড়াতে বলে তাদের দেশপ্রেমী প্রমাণ করা যায় না। যিনি দাঁড়াতে চাননা তিনি দেশপ্রেমী নন এমন কথাও বলা যায় না। আদালত জানায়, মানুষ সিনেমা হলে আসেন নিখাদ বিনোদনের জন্য। সেখানে কেউ যদি কাল বলে মানুষজন সিনেমা হলে হাফ প্যান্ট আর টি-শার্ট পড়ে আসতে পারবেন না, তবে তা নৈতিক পুলিশগিরি ছাড়া আর কিছুই হবে না। কাউকে আস্তিনে দেশপ্রেম নিয়ে ঘুরতে বাধ্য করা যায় না বলেও জানিয়েছে আদালত। কেন্দ্রের কাছে আদালতের প্রশ্ন, কেউ যদি জাতীয় সঙ্গীত না গান তবে তিনি দেশপ্রেমী নন কে বলেছে?

এদিন সুপ্রিম কোর্ট যা বলল তাতে আপাতত সিনেমা হলে জাতীয় সঙ্গীত বাধ্যতামূলক করা বা না করা এখন কেন্দ্রের কোর্টে। এখন সময় বলবে কেন্দ্র এ বিষয়ে কোনও আইন আনে কিনা।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button