SciTech

১০০ বছরের মধ্যে বসবাসের নতুন গ্রহ খুঁজতে হবে মানুষকে, সতর্ক করলেন হকিং

জনবিস্ফোরণ, গ্রহাণুর হামলা ও জলবায়ু পরিবর্তন। এগুলোর যে কোনও একটা শেষ করে দিতে পারে মানব সভ্যতাকে। ফলে মানুষের উচিত দ্রুত অন্য গ্রহে বসবাসের বন্দোবস্ত করা। আগামী ১০০ বছরের মধ্যেই অন্য গ্রহকে মানুষের বসবাসযোগ্য বানিয়ে ফেলতে হবে তাদের। সতর্ক করলেন বিখ্যাত ব্রিটিশ পদার্থবিজ্ঞানী স্টিফেন হকিং।

হকিং আরও বলেছেন, এখন দ্রুত প্রযুক্তিগত উন্নয়ন ঘটছে। সেইসঙ্গে পাল্লা দিয়ে একটি প্রজাতি হিসাবে মানুষ তার বেঁচে থাকার দক্ষতা হারাচ্ছে। পাশাপাশি কৃত্রিম বুদ্ধির যেভাবে বাড়বাড়ন্ত হচ্ছে তাতে সেই বুদ্ধি একসময়ে মানুষের বুদ্ধিকে ছাপিয়ে যাবে বলেই মনে করছেন হকিং। তখন এই পৃথিবী মানুষের বসবাসের যোগ্য আর থাকবে না। তাদের অন্যত্র থাকার বন্দোবস্ত করতে হবে। কিন্তু কোথায় যাবে মানুষ? কোথায় ঘর সংসার নিয়ে বাসা বাঁধবে? সে নিয়ে গবেষণাও শুরু হয়ে গেছে।

বিজ্ঞানীরা বলছেন বুধ গ্রহটি আয়তন ও মাধ্যাকর্ষণ শক্তির দিক দিয়ে পৃথিবীর কাছাকাছি হলেও মঙ্গল বা লাল গ্রহই মানুষের থাকার জন্য বেশি ভাল। কারণটা অবশ্যই সেখানকার মাটির চরিত্র  থেকে শুরু করে তাপমাত্রা ও জলবায়ুর ধরণ। এসবই পৃথিবীর সঙ্গে খুব বেশি মেলে। সেই সঙ্গে লাল গ্রহেও একটা দিন হয় ২৪ ঘণ্টা ৩৯ মিনিট ৩৫ সেকেন্ড। প্রায় পৃথিবীর সমান।

তবে কী মঙ্গল গ্রহই হতে চলেছে মানুষের দ্বিতীয় পৃথিবী। যেখানে গুছিয়ে ঘর সংসার পেতে করেকম্মে বেঁচে থাকবে মানবজাতি। এর উত্তর পেতে অপেক্ষা করতে হবে আর বেশ কিছু সময়।


Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button