Srinivasa Gowda
ষাঁড়ের দৌড়ে শ্রীনিবাস গৌড়া, ছবি - আইএএনএস

উসেইন বোল্টকে সময়ে হারিয়ে স্বপ্ন দেখাচ্ছেন গ্রামের ছেলে শ্রীনিবাস

দৌড়-এ ভারত যে আদৌ কখনও বিশ্বজয় করতে পারবে, ভারতের কোনও দৌড়বীর বিশ্বের সবচেয়ে গতিশীল দৌড়বীরের তকমা পাবেন। ১৩০ কোটির ভারতবাসী সে স্বপ্ন বড় একটা দেখেননা। ভারত ওই ইভেন্টে অলিম্পিকে নামই দেয়না। সেখানে আচমকাই ধূমকেতুর মত সামনে এলেন গ্রামের ছেলে শ্রীনিবাস গৌড়া। কর্ণাটকের ছেলে শ্রীনিবাস সেখানে স্থানীয় ষাঁড়ের দৌড়ে অংশ নিয়েছিলেন। আর সেখানে ১০০ মিটার ছুটতে সময় নেন ৯.৫৫ সেকেন্ড। যেখানে বিশ্বের দ্রুততম মানুষটির রেকর্ড সময় ১০০ মিটারে ৯.৫৮ সেকেন্ড।

শ্রীনিবাসের এই সময় আচমকাই তাঁকে সংবাদের শিরোনামে তুলে এনেছে। সোশ্যাল সাইট থেকে সাধারণ মানুষ সকলেই চাইছেন ভারতের হয়ে অলিম্পিকে অংশ নিন শ্রীনিবাস। তাঁর যা প্রতিভা তাতে তিনি বিশ্বর দ্রুততম মানুষ হওয়ার ক্ষমতা রাখেন বলেও মনে করেন অনেকে। বিষয়টি কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী কিরেণ রিজিজুর নজরেও আসে। আর প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই শ্রীনিবাসের ডাক পড়ে ট্রায়ালে।

রিজিজু জানিয়েছেন, তিনি নিশ্চিত করতে চান যে ভারতের কোনও সম্ভাবনাময় ক্রীড়াপ্রতিভা বিনা পরীক্ষিত হিসাবে থেকে যাবেননা। সকলের টেস্ট হবে। প্রতিভা থাকলে সুযোগ পাবেন। শ্রীনিবাসের পরীক্ষা নেওয়ার জন্য সাই-এর কয়েকজন কোচকে নিযুক্ত করা হয়েছে। তাঁরাই শ্রীনিবাসের দৌড়ের ক্ষমতা পরীক্ষা করবেন। মানুষজন অবশ্য বলছেন কোনও তালিম না থাকা শ্রীনিবাসকে গড়ে পিঠে নেওয়ার কাজ সরকারের। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা