National

ভ্যালেন্টাইনস ডে-তে চুম্বন পেলেন রাহুল গান্ধী

দিনটা ভ্যালেন্টাইনস ডে। এদিন দক্ষিণ গুজরাটের ভালসাদ জেলার লাল ডুংরি গ্রামে গিয়েছিলেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। জনসভা শুরু হওয়ার আগে স্টেজে তাঁকে মালা পরাতে হাজির হন ৬৮ বছর বয়স্ক পার্সি মহিলা কাশ্মীরা মুন্সি। চিরকাল কংগ্রেসের জন্য গলা ফাটিয়েছেন তিনি। কংগ্রেসের একনিষ্ঠ মহিলা কর্মীও। তিনি স্টেজে উঠে রাহুল গান্ধীর কাছে হাজির হন। গোলমুখের এই বৃদ্ধা রাহুলের কাছে গিয়ে ২ হাত দিয়ে রাহুলের গালে ধরে টেনে নিচের দিকে নামান।

Rahul Gandhi
ভালসাদের জনসভায় বক্তৃতা রাহুল গান্ধীর, ছবি – আইএএনএস

ওই মহিলার উচ্চতা কম। ফলে রাহুল গান্ধীকে ঝুঁকতে হয়। তারপরই সকলকে অবাক করে রাহুল গান্ধীর বাঁ গালে চুমু খান কাশ্মীরা। তারপর রাহুলের গাল ও চিবুক ধরে আদরও করে দেন। এই সময় অন্য এক মহিলা রাহুল গান্ধীকে মালা পরিয়ে দেন। এই ঘটনায় অনেকেই হেসে ওঠেন। বহু মানুষ সেখানে জমায়েত করেছিলেন।

Rahul Gandhi
আজমের-এর জনসভায় বক্তৃতা রাহুল গান্ধীর, ছবি – আইএএনএস

প্রসঙ্গত এদিন এই লাল ডুংরি গ্রাম থেকেই ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনে দলের প্রচার শুরু করলেন রাহুল গান্ধী। জনসভাকে কেন্দ্র করে প্রচুর মানুষের ভিড় জমেছিল এখানে। কিন্তু এত জায়গা থাকতে কেন লাল ডুংরি গ্রাম? এরও কারণ রয়েছে। ১৯৮০ সালে ইন্দিরা গান্ধী, ১৯৮৪ সালে রাজীব গান্ধী, ২০০৪ সালে সনিয়া গান্ধী এখান থেকেই লোকসভা নির্বাচনের প্রচার শুরু করেছিলেন। আর সেই সেই বার লোকসভা নির্বাচন জিতে ক্ষমতায় আসে কংগ্রেস। তাই এই লাল ডুংরি গ্রাম থেকে প্রচার শুরু করলে জয় নিশ্চিত এমন এক বিশ্বাস কংগ্রেসের আছে।

(সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা)


Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button