Entertainment

চরম দারিদ্র্য ও যক্ষ্মায় আক্রান্ত সলমন খানের সহ-অভিনেত্রী

১৯৯৫ সালে রুপোলী পর্দায় মুক্তি পেয়েছিল ‘বীরগতি’। ছবিতে অভিনয় করেছিলেন নবাগতা অভিনেত্রী পূজা দাদওয়াল। তারপরেও বেশ কয়েক বছর বলিউডে কাজ করে গেছেন পূজা। যদিও সেইভাবে খ্যাতি বা জনপ্রিয়তা কোনোটাই জোটেনি তাঁর। হয়তো সেই কারণেই ফিল্ম জগতকে বিদায় জানিয়ে অতঃপর সংসারেই মন দেন ‘হিন্দুস্তান’, ‘ইন্তেকাম’, ‘সিন্দুর কি সৌগন্ধ’ ইত্যাদি ছবির অভিনেত্রী। সলমনের সঙ্গেও ‘বীরগতি’-র পরে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় তাঁর যোগাযোগ।

সংসার জীবনটাও শেষ অবধি সুখের কাটলনা পূজার। ৬ মাস আগে মেডিক্যাল পরীক্ষার রিপোর্ট হাতে আসতেই বদলে যায় তাঁর জীবন। স্ত্রীর শরীরে যক্ষ্মার বীজ দানা বেঁধেছে একথা জানতেই স্বামী পরিত্যাগ করেছেন কপর্দকশূন্য অভিনেত্রীকে। মুম্বইয়ের শিভদি হাসপাতালে এখন দিন কাটছে তাঁর। অথচ চিকিৎসা চালানোর মত আর টাকাপয়সা তাঁর নেই। চরম আর্থিক দৈন্যতায় তাই একসময়ে তাঁর সহ-অভিনেতা সলমন খানের কাছে দরবার করেন পূজা। সলমনের কাছে অর্থসাহায্য চেয়ে একটি ভিডিও সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেন তিনি। যদিও সলমনের কোনও সাহায্য এখনও অবধি এসে পৌঁছয়নি তাঁর কাছে। তবে পূজা বা সলমন অনুরাগীরা কিন্তু আশা ছাড়েননি ‘বিয়িং হিউম্যান’-এর কর্ণধারের ওপর।


Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button