National

এশিয়ায় দৃষ্টান্ত সৃষ্টি করে দেখাল দেশের সবুজ বালিপাড়া

এ এক অনন্য স্বীকৃতি। এশিয়ায় এ এক উদাহরণ হয়ে উঠেছে। অবশ্যই এই স্বীকৃতি দেশের ঝুলিতে এনে দিচ্ছেন এখানকার বাসিন্দারা।

বিশ্বজুড়ে এই আপাত অচেনা জায়গাটি নিয়ে চর্চা হচ্ছে। ভারতের বিশেষজ্ঞেরা এর উদাহরণ তুলে ধরছেন। এশিয়াতেও এ এক দৃষ্টান্ত তৈরি করেছে। অবশ্য বিশেষজ্ঞেরা মনে করছেন যে লক্ষ্যে বালিপাড়া এগোচ্ছে তাকে আরও শক্তিশালী করতে প্রশাসন ও স্থানীয় মানুষের যোগদানে আরও গতি আনা প্রয়োজন।

অসমের বালিপাড়া এমন এক জায়গা যা এখন বিশ্ব পরিবেশ চর্চার একটি উদাহরণ হয়ে উঠেছে। বিশ্ব উষ্ণায়ন ও তার প্রতিকার নিয়ে একের পর এক বিশ্ব সম্মেলন আয়োজিত হচ্ছে। সেখানে নানা দেশের বিশেষজ্ঞেরা একজোট হচ্ছেন।

কী করা যায় তা নিয়ে আলোচনা হচ্ছে। বিশ্ব উষ্ণায়ন ও জলবায়ু পরিবর্তন এখন এমন পর্যায়ে পৌঁছেছে যে ভারতেও তার প্রভাব স্পষ্ট। গরম বেড়েই চলেছে দেশে। তাই তা থেকে মুক্তির পথ খুঁজতে দরকার সবুজায়ন। সেই পথে বালিপাড়া পথ দেখাচ্ছে।

বালিপাড়ায় শুরু হয়েছে জঙ্গল বাঁচানোর লড়াই। সেইসঙ্গে স্থানীয় মানুষজনের প্রচেষ্টায় ৬১ হেক্টর এলাকাকে বাঁচানোর জন্য সেখানে ২০২৪ সালে ২ কোটি গাছ লাগানোর পরিকল্পনা করা হয়েছে।


যা সম্পূর্ণ করবে স্থানীয় বেশ কয়েকটি সংগঠন। যেখানে স্থানীয় মানুষের সাহায্য বড় ভূমিকা নেবে। সেই সঙ্গে প্রশাসনিক সহায়তা তো আছেই।

পরিবেশ বিশেষজ্ঞেরা মনে করছেন এভাবে যদি উদ্যোগ নেওয়া যায় তাহলে ভারতের অনেক জায়গাকেই এই জলবায়ু পরিবর্তনের করাল গ্রাস থেকে মুক্তির পথ দেওয়া যেতে পারে। সেদিক থেকে বালিপাড়ার এই সবুজায়নের লড়াই শুধু দেশ নয়, গোটা এশিয়ার জন্য এক উদাহরণ তৈরি করেছে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button