National

গর্ভবতী ছাগীকে গণধর্ষণ, গ্রেফতার ৮

বিকৃতমনা কিছু কামুক ব্যক্তির পাশবিক যৌন অত্যাচারের হাত থেকে রেহাই পেল না গর্ভবতী ছাগীও। সন্তানসম্ভবা ওই ছাগীটিকে গত বুধবার রাতে গণধর্ষণ করে ৮ জন। এক গর্ভবতী ছাগীও এখন রেহাই পাচ্ছে না বিকৃতকাম কিছু মানুষের হাত থেকে। লাগাতার ধর্ষণে রক্তাক্ত ছাগীটিকে বাঁচানো সম্ভব হয়নি। মৃত্যু হয় তার। এরপরই গ্রামবাসীদের আক্রোশের শিকার হয় অভিযুক্তরা। ৩ জনকে ব্যাপক মারধর করেন গ্রামবাসীরা। পরে ছাগীর মালিকের অভিযোগক্রমে অভিযুক্তদের গ্রেফতার করে তাদের বিরুদ্ধে প্রকৃতি বিরুদ্ধ যৌনসঙ্গমের অভিযোগে মামলা দায়ের করেছে পুলিশ।

চমকে দেওয়ার মত ঘটনাটি ঘটেছে হরিয়ানার মেওয়াত জেলার মারোদা গ্রামে। সংবাদমাধ্যমকে পুলিশ জানিয়েছে, ছাগীটির মালিকের দাবি তিনি বুধবার রাতে একটি শব্দ পান। তখনই তিনি বাড়ি লাগোয়া জায়গায় যেখানে ছাগীটি বাঁধা থাকত সেখানে গিয়ে দেখেন তাঁর একমাত্র ছাগীটি বেপাত্তা। এরপর খোঁজাখুঁজি করতে গিয়ে কাছেই একটি আওয়াজ পান তিনি। সেখানে গিয়ে দেখেন ৩ ব্যক্তি তাঁর গর্ভবতী ছাগীটির সঙ্গে যৌনসঙ্গমে লিপ্ত। তিনি তাড়া করায় তারা পালানোর চেষ্টা করে। তবে গ্রামবাসীদের হাতে ব্যাপক মারধরের শিকার হয় তারা। তারাই জানায় ছাগীটিকে এর আগে আরও ৫ জন ধর্ষণ করেছে।

রক্তাক্ত ছাগীটিকে বাড়িতে নিয়ে গিয়ে বাঁচানোর চেষ্টা হলেও তাকে বাঁচানো সম্ভব হয়নি। বৃহস্পতিবার সেটি মারা যায়। এরপর পুলিশে অভিযোগ দায়ের করেন ছাগীর মালিক। সেই অভিযোগক্রমে পুলিশ ৮ অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে।


Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button