Sports

অপূর্ণ স্বপ্ন নিয়েই চলে গেলেন মিলখা সিং

স্বপ্ন অধরাই থেকে গেল। ইচ্ছা ছিল তাঁর মৃত্যুর আগে স্বপ্ন পূরণ হবে। কিন্তু তা আর হল না। অপূর্ণ স্বপ্ন বুকে করেই চলে গেলেন মিলখা সিং।

সে ছিল এক হৃদয় বিদারক দিন। ৬০ বছর আগে অলিম্পিকস-এর আসরে এক ভারতীয় তরুণ গোটা দেশকে অলিম্পিক মেডেলের স্বপ্ন দেখিয়েছিল। কিন্তু শেষ মুহুর্তে পদক হাতছাড়া হয়েছিল। স্বপ্নভঙ্গ হয়েছিল গোটা ভারতের।

তবে তরুণ মিলখা সিংয়ের বিশ্বমঞ্চে সেই লড়াই ইতিহাস লিখেছিল। গোটা দেশে তিনি পরিচিতি পেয়েছিলেন ফ্লাইং শিখ হিসাবে। ভারতবাসী তাঁকে এত ভালবাসা উজাড় করে দিয়েছিলেন তাঁর লড়াইয়ের জন্য যে মিলখা কিছুটা হলেও তাঁর পদক হারানোর বেদনা ভুলতে পেরেছিলেন।

ছোটদের পাঠ্যে জায়গা পেয়েছিল তাঁর অবদান। সেই মিলখা সিং চলে গেলেন ৯১ বছর বয়সে। ভারত হারাল তার এক বিরল প্রতিভাকে।

জীবনের মতই করোনার বিরুদ্ধেও লড়াই চালিয়ে গিয়েছিলেন মিলখা সিং। করোনা সেরে গেলেও করোনা পরবর্তী সমস্যা তাঁকে কাবু করে। হাসপাতালে ১ মাস লড়াই চালান তিনি। এরমধ্যে স্ত্রীকেও হারান। অবশেষে গত শুক্রবার রাত সাড়ে ১১টায় মৃত্যু হয় মিলখা সিংয়ের।


তাঁর মৃত্যুতে শোক ব্যক্ত করেছেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়, হরভজন সিং সহ অনেক ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব। শোক ব্যক্ত করেছেন মিলখার জীবন নিয়ে তৈরি সিনেমায় তাঁরই চরিত্রে অভিনয় করা ফারহান আখতার। ২০১৩ সালে মিলখা সিংয়ের জীবন নিয়ে তৈরি হয় সিনেমা ‘ভাগ মিলখা ভাগ’। যা সুপারহিট হয়।

মিলখা সিং চিরকাল দেশের তরুণ অ্যাথলিটদের উজ্জীবিত করেছেন। চিরকাল চেয়ে এসেছেন তিনি যেটা পারেননি ভারতের কোনও এক অ্যাথলিট সেটা করবেন। অলিম্পিকস থেকে পদক নিয়ে আসবেন ভারতের জন্য। কিন্তু সে স্বপ্ন স্বপ্নই থেকে গেল।

মিলখা সিংয়ের স্বপ্ন পূরণ করতে পারলেন না ভারতের কোনও অ্যাথলিট। স্বপ্ন বুকে করেই অন্য লোকে পাড়ি দিলেন উড়ন্ত শিখ। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article
Back to top button