National

রেল যাত্রীদের জন্য দারুণ সুখবর, ফিরছে পুরনো নিয়ম

রেলে যাঁরা সফর করেন, বিশেষত যাঁরা বাতানুকূল কামরায় সফর করেন তাঁদের জন্য দারুণ সুখবর নিয়ে এল রেল কর্তৃপক্ষ। পুরনো একটি পরিষেবা ফিরিয়ে আনল তারা।

বৃহস্পতিবার হল ঘোষণা। আর তা লাগু হয়ে গেল বৃহস্পতিবার থেকেই। রেলের সিদ্ধান্ত সামনে আসার পরই যাঁরা রেলে সফর করেন তাঁরা অত্যন্ত খুশি হয়েছেন। ২ বছর আগে বন্ধ হওয়া নিয়ম যে ফিরিয়ে আনল রেল।

রেলে অনেকেই বেড়াতে যান। অনেকে অফিসের কাজে বা ব্যবসার কাজেও রেলে সফর করেন। কেউ তীর্থ ভ্রমণের জন্যও রেলের ওপর নির্ভরশীল।

বেশি সফর করুন বা মাঝেমাঝে, বাতানুকূল কামরায় তাঁরা ২ বছর আগেও পেতেন কাগজের প্যাকেটে মোড়া কম্বল, বালিশ, তোয়ালে, চাদর। যা তাঁদের সফরকালে অত্যন্ত প্রয়োজনীয় ছিল। তখন তা পুরো সফরে ব্যবহার করার পর তাঁর সিটেই সবকিছু রেখে নেমে যেতেন যাত্রীরা।

রেল কর্তৃপক্ষ তা ফের সংগ্রহ করে, পরিস্কার পরিচ্ছন্ন করে ফের কাগজে মুড়ে বিতরণ করত। এজন্য কোনও অতিরিক্ত অর্থ গুনতে হতনা। কামরার জানালাগুলিতে লাগানো থাকতো সুন্দর পর্দাও। কিন্তু সবই বন্ধ হয়ে যায় বছর ২ আগে এক ব্যাধির প্রকোপে।

গত ২ বছরে রেল কর্তৃপক্ষ যাত্রীদের কথা মাথায় রেখে একবার ব্যবহারযোগ্য কম্বল, বালিশ, চাদর দিচ্ছিল ঠিকই তবে তা কিনতে হচ্ছিল। কেউ চাইলে কিনতে পারেন, না চাইলে কিনবেন না।

তার সঙ্গে দেওয়া হচ্ছিল টুথপেস্ট, টুথব্রাশ, চিরুনি, স্যানিটাইজারও। সবই ছিল একবার ব্যবহারের। একবার তা কেনার পর যাত্রীরা চাইলে তা সফর শেষে সঙ্গেও নিয়ে যেতে পারেন, নতুবা ট্রেনের বিশেষ স্থানে রেখেও যেতে পারেন। এজন্য ৩০০ টাকা গুনতে হচ্ছিল।

সেই অতিরিক্ত অর্থব্যয়ের আর প্রয়োজন রইল না। বৃহস্পতিবার থেকে চালু হয়ে গেল আগের মতই বাতানুকূল কামরায় সফরের সময় কাগজে মোড়া কম্বল, তোয়ালে, বালিশ, চাদর। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.