National

করোনার সঙ্গে লড়াইয়ে এবার কাজে লাগতে পারে রেলের খালি কামরা

দেশে করোনা সংক্রমিতের সংখ্যা বেড়ে চলেছে। এই পরিস্থিতিতে গত বুধবারই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী মন্ত্রিসভার বৈঠকে মন্ত্রীদের এ নিয়ে ভাবতে বলেছিলেন। তারপরই রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল রেলের উচ্চপদস্থ আধিকারিকদের নিয়ে বৈঠকে বসেন। সেখানেই একটি নয়া ভাবনা জন্ম নিয়েছে। রেলের খালি কামরাকে যদি আইসোলেশন ওয়ার্ডে পর্যবসিত করা যায় সে ভাবনা শুরু করেছে রেল।

আপাতত ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত সারা দেশ জুড়েই রেল চলাচল বন্ধ। ফলে রেলের কামরাগুলি ফাঁকাই পড়ে আছে। সেই ফাঁকা কামরাকে যদি করোনা রোগীদের আইসোলেশন ওয়ার্ডে পরিণত করা যায় তাহলে সমস্যা কিছুটা মেটে। আইসোলেশন ওয়ার্ডও বাড়ে। এমনই একটি ভাবনা নিয়ে আপাতত এগোচ্ছে রেল। এটা করা কতটা বাস্তবসম্মত তা সবদিক থেকে ভেবে দেখা হচ্ছে। এমনই জানাচ্ছে সংবাদ সংস্থা আইএএনএস।

ভারতে প্রতি হাজার জনে ০.৭টি বেড রয়েছে। ভারত সরকার সেটাকে প্রতি হাজার জনে ২টি বেডে নিয়ে যেতে চাইছে। আর বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা হু জানিয়েছে ভারত যেন প্রতি ১ হাজার জনে ৩টি বেডের বন্দোবস্ত করে। এসব কথা মাথায় রেখেই আপাতত আসোলেশন ওয়ার্ড কীভাবে বাড়ানো যায় তার ভাবনাচিন্তা শুরু হয়েছে। তারই একটি রাস্তা দেখাচ্ছে রেল। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা


Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button