Health

ঘুম হলেও গভীর ঘুম না হলে তা জোড়া বিপদের অশনিসংকেত, বলছেন বিজ্ঞানীরা

শরীর ক্লান্ত হলে ঘুম তো পাবেই। কিন্তু ঘুম গভীর না হলে তা জোড়া বিপদের অশনিসংকেত। অন্তত তেমনই মনে করছেন গবেষকেরা।

ঘুম কম হওয়ার সমস্যা অনেকের আছে। আবার কিছু মানুষ আছেন যাঁদের ঘুম এলেও তা বারবার ভেঙে যায়। গভীর ঘুম যাকে বলে তা তাঁদের হয়না। কম ঘুম হয় তাঁদের। ঘুমোলেও সজাগ থাকে মস্তিষ্ক।

তাঁদের ঘুম হয় বটে, তবে তা পাতলা। গভীর ঘুম হয়না। তাঁদের কিন্তু ২টি ভয়ংকর রোগে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে। নিউ ইয়র্কের মেয়ো ক্লিনিকের গবেষকেরা এমনটাই দাবি করেছেন।

গবেষকদের দাবি, ঘুম পাতলা হলে বা ঘুমে ব্যাঘাত ঘটার অভ্যাস থাকলে তা মস্তিষ্কে কিছু পরিবর্তন সুনিশ্চিত করে। অবশ্য সকলের ক্ষেত্রে এই পরিবর্তন একইরকম হয়না। তাঁদের কারও বেশি কারও কম হয় স্থান, বয়সের ওপর নির্ভর করে।

আবার উচ্চ রক্তচাপ বা কোলেস্টেরল থাকলে সেই সম্ভাবনায় পরিবর্তন হয়। গবেষকদের দাবি, যাঁদের গভীর ঘুম হয়না তাঁদের স্ট্রোকের সম্ভাবনা বেশি থাকে। তাঁরা অ্যালজাইমারস রোগেও আক্রান্ত হতে পারেন। যা অবশ্যই যে কারও কাছে চিন্তার।

গবেষকেরা এই গবেষণার জন্য ১৪০ জনকে বেছে নিয়েছিলেন। যাঁদের গড় বয়স ৭৩ বছর এবং যাঁদের ঘুমে ব্যাঘাতের সমস্যা আছে। তাঁদের স্লিপ ল্যাবরেটরিতে সারারাত পর্যবেক্ষণ করা হয়।

সব মিলিয়ে গবেষকেরা যে সিদ্ধান্তে আসেন তা হল গভীর ঘুম না হলে মস্তিষ্কে কিছু পরিবর্তন ঘটে। যা ২টি সম্ভাবনা বাড়িয়ে দেয়। যাঁদের গভীর ঘুমের সমস্যা রয়েছে তাঁদের জন্য অবশ্য তার চিকিৎসাও রয়েছে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button