National

শক্তি হারাল যশ, এগোচ্ছে ঝাড়খণ্ডের দিকে

অতিশক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় থেকে সাধারণ ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হল যশ। এখনও তা ওড়িশার ওপরই অবস্থান করছে। তবে তা ক্রমে ঝাড়খণ্ডের দিকে সরবে।

স্থলভাগে সম্পূর্ণ প্রবেশের পর ৬ ঘণ্টা কেটে গেছে। আবহাওয়া দফতর আগেই জানিয়েছিল স্থলভাগে প্রবেশের পর ৬ ঘণ্টা কেটে গেলে অতিশক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় থেকে সাধারণ ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হবে যশ।

স্থলভাগে আছড়ে পড়ার সময় যে ঝড়ের গতি ছিল ১৩০ থেকে ১৪০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা এবং সর্বোচ্চ গতি ছিল ১৫৫ কিলোমিটার, শক্তি হারিয়ে তা রাতের মধ্যে নেমে যাবে ৭০ থেকে ৮০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা বেগের ঝড়ে।

ওড়িশায় উত্তর প্রান্ত দিয়ে স্থলভাগে প্রবেশ করার পর যশ অনেক জায়গায় তাণ্ডব চালায়। ঝড় মোকাবিলায় তৈরি ছিল ওড়িশা প্রশাসনও।

এদিকে শক্তি হারিয়ে দুর্বল হয়েই যশ প্রবেশ করবে ঝাড়খণ্ডে। ফলে সেখানে কিছু জায়গায় বৃহস্পতিবারও প্রবল বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।


বৃহস্পতিবার বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে এ রাজ্যের পশ্চিমাঞ্চলের জেলাগুলিতেও। এমনকি ওড়িশা ও পশ্চিমবঙ্গের উপকূলীয় এলাকায় বৃহস্পতিবারও ভাল পরিমাণে বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

মৎস্যজীবীদের বৃহস্পতিবার সকালেও সমুদ্রে যেতে মানা করা হয়েছে। সমুদ্র উত্তাল থাকবে বলেই মনে করা হচ্ছে। কোটালের কারণেই এতটা উত্তাল থাকছে সমুদ্র।

তবে দুর্যোগ যা হওয়ার হয়ে তা কেটে গেছে বলেই আপাতত মনে করছেন সকলে। এখন উদ্ধারকাজ ও ক্ষয়ক্ষতি মাপার পালা।

Show Full Article
Back to top button